চাকরির প্রস্তুতি

পরীক্ষার প্রশ্নে ভুল থাকলে করনীয়

কোনো একাডেমিক কিংবা চাকরির নিয়োগ পরীক্ষার প্রশ্নে ভুল থাকলে বা অপশনে সঠিক উত্তর না থাকলে করনীয় :

১। অপশনে সঠিক উত্তর না থাকলে সবচেয়ে প্রচলিত উত্তরটিই করে আসবেন।

যেমন প্রশ্নে উল্লেখ করা হলো– রঙ্গিন টেলিভিশন থেকে কোন রশ্মি বের হয়?
ক) গামা রশ্মি খ) বিটা রশ্মি গ) আলফা রশ্মি ঘ) মৃদু রঞ্জন রশ্মি 
সঠিক উত্তর : এখানে সঠিক উত্তর “মৃদু রঞ্জন রশ্মি”।
কিন্তু অপশনে “মৃদু রঞ্জন রশ্মি” না থাকলে, প্রচলিত উত্তর “গামা রশ্মি” দিবেন।ক। গামা রশ্মি খ। বিটা রশ্মিগ। আলফা রশ্মি ঘ। অতি বেগুনি রশ্মি 

২। প্রশ্নের চারটি অপশনের কোনোটিতেই যদি সঠিক উত্তর না থাকে এবং প্রচলিত উত্তরও না থাকে সেই ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট প্রশ্নটি বাদ দিয়েই উত্তর করবেন।
যেমন ধরুন– গীতাঞ্জলি কাব্য গ্রন্থটি কে রচনা করেছেন?
ক) প্রমথ চৌধুরী খ) কায়কোবাদ গ) কাজী নজরুল ইসলাম ঘ) বিহারীলাল চক্রবর্তী 
এখানে অপশনে উত্তর নেই এ ক্ষেত্রে করণীয় কী?এই ধরনের প্রশ্ন বাদ দিয়ে উত্তর করবেন।


৩। অপশনে দুটি বা তিনটি উত্তরই সঠিক থাকলে সবচেয়ে প্রচলিত উত্তরটি দিবেন। যেমন-
প্রশ্ন: নিজের কোন উপজাতিটি পিতৃতান্ত্রিক পরিবার? 
ক) মারমা খ) খাসিয়া গ) সাঁওতাল ঘ) গারো। 
এখানে অপশন (ক) ও (গ) দুটিই সঠিক। কিন্তু বেশি প্রচলিত হলো ‘মারমা’। তাই এখানে ‘মারমা’ উত্তর করাই শ্রেয়।


৪। প্রশ্নে ভুল থাকলে যেমন টাইপিং বা প্রিন্টিং মিস্টেক, সেটা বোঝা গেলে সেই প্রশ্ন ধরে উত্তর করবেন। অর্থাৎ প্রশ্ন ছেড়ে না দিয়ে সঠিক উত্তর অনুযায়ী ওএমআর এর বৃত্ত ভরাট করবেন।

গাজী মিজানুর রহমান
৩৫তম বিসিএস ক্যাডার।
প্রতিষ্ঠাতা : বিসিএস টেকনিক

Rate this post

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button